পৈতৃক সম্পত্তির অধিকার কিভাবে নেবেন? পুত্র ও কন্যা

পৈতৃক সম্পত্তির অধিকার খুবই গুরুত্বপূর্ন একটি বিষয়। তা সত্তেও আমাদের সমাজে অনেকেই আছেন ঠিকঠাকভাবে পৈত্তিক সম্পত্তি বুঝে পান নি। অথবা বুঝে নিতে গিয়ে অনেক ঝামেলা পোহাতে হয়েছে।

এজন্য দায়ী অনেক সম্পত্তি লোভী মানুষ, যারা অন্যায়ভাবে অন্যের সম্পত্তি হাতিয়ে নেয়ার চেষ্টা করে থাকে। অন্যদিলে আমাদের মাঝে জমি সংক্রান্ত বিষয় নিয়ে অজ্ঞতাও এই সকল প্রতারকদের অন্যায় কাজ করতে সহজ করে দেয়। আমাদের অজ্ঞতার কারনে অনেক সময় আমরা আমাদের সঠিক অধিকার আদায় করতে পারি না। 

How to take the Right of Ancestral Property Sons and Daughters
How to take the Right of Ancestral Property Sons and Daughters

তাই আমাদের সবারই জমি সংক্রান্ত আইনগুলি ভালোভাবে জেনে রাখা উচিত। জমি সংক্রান্ত সকল আইনের মাঝে পৈতৃক সম্পত্তি অধিকার আইন জেনে রাখা সবার জন্য খুবই দরকারী।

কারণ, আমাদের মাঝে প্রায় পৈতৃক সম্পত্তি পাবার সম্ভাবনা তৈরি হবে এবং সেই সময় আমরা যদি জমি সংক্রান্ত বিষয়গুলি না জানি, তাহলে আমাদের নিজেদের পৈতৃক সম্পত্তির অধিকার পেতে কষ্টকর হতে পারে। তাই আমাদের সবারই পৈতৃক সম্পত্তির অধিকার কিভাবে নিতে হয় না জেনে নিতে হবে। 

আমাদের সাইটে নিয়মিতভাবেই আপনাদের জন্য জমি সংক্রান্ত নানা বিষয় নিয়ে আলোচনা করা হয়ে থাকে। এতে করে আপনারা জমি নিয়ে নানা আইন, অধিকার সম্পর্কে জানতে পারেন।

আজ আমরা আপনাদের সাথে পৈতৃক সম্পত্তির অধিকার কিভাবে নেয়া যায় তা নিয়ে আলোচনা করবো। পুত্র হোক বা কন্যা হোক না কেন পৈতৃক সম্পত্তির অধিকার কিভাবে নেয়ার যায় তার বিষদ আলোচনা করা হবে। এতে করে আপনারা খুব সহজেই নিজেদের বা অন্য কারো পৈতৃক সম্পত্তির অধিকার আদায় করা জানতে পারবেন। 

আসুন দেখে নিই, কিভাবে পৈতৃক সম্পত্তির অধিকার নেয়া যায়। 

জেনে নিই, পৈতৃক সম্পত্তি কি? 

প্রথমের আমাদের জানতে হবে পৈতৃক সম্পত্তি বলতে কি বুঝায়। কোন কোন সম্পত্তি পৈতৃক সম্পত্তি হিসেবে বিবেচিত হয়ে থাকে। পৈতৃক সম্পত্তি বলতে বংশপস্পরায় জমির মালিকানা তৈরি হওয়া। যার ফলে পূর্বপুরুষদের ৪ জেনারেসান পর্যন্ত সম্পত্তির মালিক হয়ে থাকে।

একজন মানুষ জন্মের সাথে সাথেই ঐ বংশের সম্পত্তির অধিকার লাভ করে থাকে। যেখানে অন্য সম্পত্তিতে পূর্বপুরুষের মৃত্যুর পর মালিকানা লাভ করে থাকে, সেখানে পৈতৃক সম্পত্তিতে মৃত্যুর পূর্বেই মালিকানা লাভ করে থাকে। 

পৈতৃক সম্পত্তিতে পিতা ও পুত্রের অধিকার

পিতা ও পুত্র একই বংশের সন্তান হওয়ায় দুইজনই পৈতৃক সম্পত্তিতে অধিকার লাভ করবে।

ভারতীয় উত্তরাধিকার আইন অনুযায়ী, পৈতৃক সম্পত্তিতে উভয়েই একই বংশের উত্তরাধিকারী হওয়ায়, পৈত্তিক সম্পত্তিতের পিতা ও পুত্র সমান অধিকার লাভ করবে। 

পুত্র সন্তান ও কন্যা সন্তানের জন্য উত্তরাধীকার আইন কি বলে? 

অনেকের মনেই প্রশ্ন থাকে যে, পৈতৃক সম্পত্তিতে কন্যা সন্তান ও পুত্র সন্তান কিভাবে অধিকার পায়। ভারতের হিন্দু উত্তরাধিকার আইন ২০০৫ অনুযায়ী, পৈতৃক সম্পত্তির উত্তরাধিকার প্রশ্নের কন্যা সন্তান ও পুত্র সন্তান সমান আইনগত অধিকার লাভ করবে।

যদিও পূর্বের ভারতীয় আইনে শুধুমাত্র পুত্র সন্তান পৈতৃক সম্পত্তির উত্তরাধিকার হিসেবে বিবেচিত হতো। ভারতীয় উত্তরাধিকার আইন ১৯৫৬ সালের আইনে কন্যা সন্তানের কথা উল্লেখ ছিলো না। শুধুমাত্র পুত্র সন্তানের কথা উল্লেখ ছিলো।  পরবর্তীতে ২০০৫ সালে এই আইনের ৫৬ ধারা পরিবর্তন করে কন্যা সন্তানের অধিকারের কথা উল্লেখ করা হয়। 

পিতার নিজের অর্জিত সম্পত্তিতে পুত্রের অধিকার

অনেক সময় প্রশ্ন আসে যে, পিতার অর্জিত সম্পত্তিতে পুত্রে অধিকার কিভাবে থাকবে। ভারতীয় সুপ্রিম কোর্টের ২০১৬ সালের এক আদেশ অনুসারে, পিতার নিজের অর্জিত সম্পত্তির উপরে পুত্রের কোন অধিকার থাকবে না।

এক্ষেত্রে পুত্র বিবাহিত বা অবিবাহিত যাই হোক না কেন, পিতার অনুমোদন ব্যতিত নিজের অর্জিত সম্পত্তির বাড়িতে পুত্র অবস্থান করতে পারবে না।

তবে পিতার মৃত্যুর পর ঐ সম্পত্তি পৈত্তিক সম্পত্তি হিসেবে বিবেচিত হবে এবং সেই সাথে পিতার মৃত্যুর পর পুত্র পৈতৃক সম্পত্তি হিসেবে অধিকার লাভ করবে। 

পৈতৃক সম্পত্তি নিয়ে কিছু তথ্য জেনে নিই

১) সন্তানের জন্মের সাথে সাথেই পৈতৃক সম্পত্তিতে অধিকার সৃষ্টি হয়ে থাকে।

২) কন্যা সন্তান তার প্রাপ্য অধিকার অনুযায়ী পৈত্তিক সম্পত্তি বিক্রি করতে পারবে। 

৩) কোন সন্তান তার প্রাপ্য অধিকার থেকে বঞ্চিত হচ্ছে বলে মনে করলে, সে কোর্টের মাধ্যমে সম্পত্তিতে তার আইনগত অধিকার পেতে  লিগ্যাল নোটিশ দিতে পারবে। 

৪) মাতৃ বংশ হতে প্রাপ্ত সম্পত্তি পৈতৃক সম্পত্তি হিসেবে বিবেচিত হবে না। 

 

এভাবে আজ আমরা পৈত্তিক সম্পত্তিতে অধিকার নিয়ে আলোচনা করলাম। পরবর্তী লেখায় আরো বিস্তারিত লেখা থাকবে। তাই আমাদের পেজে নিয়মিত চোখ রাখুন। এই লেখাটি অনেকের কাজে লাগতে পারে তাই লেখাটি যতটুকু সম্ভব শেয়ার করুন, যাতে করে অনেকে এই লেখা থেকে শিক্ষা নিয়ে জমি সম্পর্কে অনেক কিছু জানতে পারবেন।  

Leave a Comment