How to Lease or Rent Government Land? | সরকারী জমি লিজে নেওয়া

আপনি কি সরকারি জমি (Government Land) লিজ বা ভাঁড়াতে নিতে চাইছেন? কিন্তু জানেন না কিভাবে? তাহলে এখনি জেনে নিন কিভাবে এই কাজ করবেন আর কিভাবেই বা সরকারি জমি লিজে নেওয়া যায়।

আমাদের চারপাশের অনেক জমিই সরকারী জমি বলে শুনে থাকি। কিন্তু লক্ষ্য করে দেখবেন যে, এসকল সরকারী জমিতে ব্যক্তি মালিকানাধীন সম্পত্তি দেখা যায়। তাই আমরা বুঝতে পারিনা, কিভাবে সরকারী জমিতে ব্যক্তিগত ভবন তৈরি হতে পাবে।

আসলে এসকল সরকারী জমি সরকারের কাছ থেকে লিজ নেওয়া যায়। আগে সহজে বানিজ্যিক কাজের জন্য সরকারী জমি লিজ নেয়া যেত না। এখন সরকার বানিজ্যিক কাজে ব্যবহারের জন্য সহজেই জমি লিজ দিচ্ছে।

বিশেষ করে অর্থনৈতিক জোনে বিশেষ সুবিধা দিয়েই সরকার জমি লিজ দিচ্ছে। এভাবে সরকারের জমি লিজ নিয়ে অনেক লাভজনক বানিজ্যিক এলাকায় ভালোভাবে বানিজ্যিক স্থাপনা তৈরি করা যায়। আমরা অনেকেই এই লিজ নেয়ার বিষয়ে ভালোভাবে জানি না। তাই অনেক সময় সুযোগ থাকা সত্তেও আমরা সরকারী জমি লিজ নেয়ার সুযোগ নিতে পারি না।

How to Lease or Rent Government Land
How to Lease or Rent Government Land

অন্যদিকে যারা এসব নিয়ে খোঁজ খবর রাখে এবং আইন কানুন জানেন, তারা খুব সহজেই সরকারী জমি লিজ নিয়ে নানা সুবিধা পেয়ে থাকে। তাই সরকারী জমি লিজ নেয়ার কলাকৌশল জেনে রাখা লাভজনক।

আমাদের বাংলাভূমি সাইটে আমরা নিয়মিতভাবে জমি সংক্রান্ত নানা তথ্য নিয়ে আপনাদের সাথে আলোচনা করে থাকি। আজ আমরা আপনাদের সাথে কিভাবে সরকারী জমি লিজ নেয়া যায় তা নিয়ে আলোচনা করবো।

এতে করে আপনারা সরকারী জমি লিজ নেয়া সম্পর্কে বিষদ জানতে পারবেন। সেই সাথে আপনার আশেপাশে বা আপনার পছন্দের কোন স্থানে সরকারী জমি লিজ নেয়ার সুযোগ আসলে আপনি সহজেই তা লিজ নিতে পারবেন।

আসুন দেখে নিই, কিভাবে সরকারী জমি (Government Land) লিজ নিতে হয়? কি কি ডকুমেন্ট জমা দিতে হয়? কোথায় গেলে সরকারী জমি লিজ নেয়া সম্পর্কে জানা যায়? নিচে আমরা বিস্তারিত ভাবে একে একে আলোচনা করছি, যাতে করে আপনারা খুব সহজে এসব নিয়মকানুন বিস্তারিত বুঝতে পারেন।

কোথায় গেলে জমি লিজের খোঁজ পাওয়া যায়?

সরকারী জমি লিজ নেয়ার মত আছে কিনা, বা কোন কোন জমি লোন নেয়ার মত আছে তা জানতে আপনাকে নগর উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের কাছে যেতে হবে।

সেখান থেকে আপনি সুনির্দিষ্টভাবে কোন কোন জমি লিজের জন্য আছে তা সহজেই জানতে পারবেন।

জমি লিজ নিতে কি কি কাগজপত্র দরকার হয়?

সরকারী জমি লিজ নিতে নিম্নলিখিত কাগজপত্র জমা দিতে হয়।

১) কোম্পানীর লেটার হেডে জমি লিজ নেয়ার জন্য আবেদনপত্র।

২) অনলাইনে প্রাপ্ত আবেদনপত্র।

৩) আপনি যে কাজে ব্যবহারের জন্য সরকারী জমিটি লিজ নিতে চাচ্ছেন, তার বিস্তারিত বিবরন জমা দিতে হবে।

৪) কোম্পানীটি প্রাইভেট লিমিটেড কোম্পানী হলে রেজিস্ট্রার্ড মেমোরেন্ডাম জমা দিতে হবে।

৫) কোম্পানীটি পার্টনারশিপ ফার্ম হলে রেজিস্টার্ড পার্টনারশীপ চুক্তি জমা দিতে হবে।

৬) শেয়ারহোল্ডিং সার্টিফিকেট।

৭) বোর্ড রেজুলেশান।

৮) আপনি যে জমিটি লিজ নিতে চান, তার ব্লক প্লান জমা দিতে হবে।

জমি লিজের আবেদন প্রক্রিয়া কিভাবে সম্পন্ন হয়?

আপনার সকল কাগজপত্রসহ আবেদনপত্র কর্তৃপক্ষের কাছে জমা দিতে হবে। আপনার আবেদন গৃহিত হলে, আপনার ঠিকানায় চিঠি ইস্যু করে জানিয়ে দেয়া হবে।

আপনাকে জমি লিজ নেয়ার জন্য নির্ধারিত ফি জমা দেয়ার জন্য ১৫ দিন সময় দেয়া হবে । ফি জমা দেয়ার ৩০ দিনের মাথায় আপনার নির্ধারিত জমির প্লট নাম্বার সহ আপনাকে বুঝিয়ে দেয়া হবে।

রাস্তার জন্য চার্জ কেমন হবে?

আপনার লিজ নেয়া জমির পরিমান ১০ একর পর্যন্ত হলে আপনাকে রাস্তা প্রসস্থ করার খরছের ২৫% টাকা জমা দিতে হবে।

জমি পরিমান ১০ একর হতে ২৫ একর পর্যন্ত হলে রাস্তার খরচের ৫০% দিতে হবে, জমির পরিমান ২৫ একরের বেশি হলে কোন চার্জ দিতে হবে না।

যেখানে নগর উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ নেই?

যেখানে নগর উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ নেই সেখানে স্থানীয় সাব রেজিস্টার অফিসে যোগাযোগ করলে জমি লিজ নেয়া সম্পর্কে জানা যায়।

 

আজ আমরা সরকারী জমি লিজ নেয়া নিয়ে বিস্তারিত অনেক বিষয় জানতে পারলাম। এর ফলে আমরা সরকারী জমি লিজ নিয়ে বানিজ্যিক কাজ করতে পারবো। আগামীতে আরো কিছু বিষয় নিয়ে আলোচনা করবো, তাই আমাদের পেজে নিয়মিত চোখ রাখুন।

এই লেখাটি অনেকের কাজে লাগতে পারে তাই লেখাটি যতটুকু সম্ভব শেয়ার করুন, যাতে করে অনেকে এই লেখা থেকে শিক্ষা নিয়ে জমি থেকে আয় করার ব্যবস্থা করতে পারে।

Leave a Comment