2022 Lakshmir Bhandar Status Check Online socialsecurity.wb.gov.in

লক্ষীর ভান্ডার প্রকল্প স্ট্যাটাস 2022 দেখুন লক্ষীর ভান্ডার রেজিস্ট্রেশন নাম্বার অথবা আইডি দিয়ে অনলাইনের মাধ্যমে। জানুন লক্ষীর ভান্ডার প্রকল্পের ফর্মের রেজিস্ট্রেশন নাম্বার কোথায় পাবেন? সাথে Lakshmir Bhandar Status Check 2022 (লক্ষীর ভান্ডার প্রকল্প স্ট্যাটাস চেক অনলাইন 2022-23)

বিধানসভা নির্বাচনের পূর্বে মাননীয়া মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় প্রতিটি পরিবারের গৃহকর্ত্রী দের মাসিক আয় সুনিশ্চিত করার জন্য ৫০০ ও ১০০০ করে টাকা দেওয়ার কথা বলেছেন।

আর সেটাই এবারে লক্ষীর ভান্ডার প্রকল্পের (Lakshmir Bhandar Scheme 2022) আকারে চালু করলেন তিনি। ১২ হাজার ৯০০ কোটি টাকার এই প্রকল্পে প্রায় ১.৬ কোটি মহিলা এই প্রকল্পের সুবিধা ভোগ করতে পারবেন।

Lakshmir Bhandar Status Check Online socialsecurity.wb.gov.in
Lakshmir Bhandar Status Check Online socialsecurity.wb.gov.in

দুয়ারের সরকার ক্যাম্পে লক্ষীর ভান্ডার প্রকল্পের জন্য আপনি এপ্লাই করেছেন। কিন্তু কিভাবে লক্ষীর ভান্ডার স্ট্যাটাস চেক করবেন আপনি? লক্ষীর ভান্ডার প্রকল্প স্ট্যাটাস 2022 (Lakshmir Bhandar Status 2022) কিভাবে অনলাইনে চেক করবেন চলুন তাহলে জেনে নেওয়া যাক-

লক্ষীর ভান্ডার প্রকল্প স্ট্যাটাস আসলে কি ?

দুয়ারে সরকার ক্যাম্পে আপনি লক্ষীর ভান্ডার প্রকল্পের জন্য এপ্লাই করেছেন নিশ্চয়ই। তাই স্বাস্থ্য সাথী প্রকল্পের মত অনলাইনে লক্ষীর ভান্ডার প্রকল্পে স্ট্যাটাস চেক করতে পারবেন আপনি।

লক্ষীর ভান্ডার রেজিস্ট্রেশন নাম্বার অথবা আইডি আপনি SMS হিসেবে পেয়ে যাবেন। ঐ আইডির সাহায্যে লক্ষীর ভান্ডার প্রকল্পের স্ট্যাটাস চেক করতে পারবেন আপনি।

লক্ষীর ভান্ডার স্ট্যাটাস নাম্বার কিভাবে পাবেন?

লক্ষীর ভান্ডার প্রকল্পের জন্য আবেদন করার সময় আপনি যে মোবাইল নাম্বারটি দিয়েছিলেন ওই মোবাইল নাম্বারে একটা SMS আসবে ওই SMSের মধ্যেই আপনি আপনার লক্ষীর ভান্ডার স্ট্যাটাস আইডি পেয়ে যাবেন।

লক্ষীর ভান্ডার স্ট্যাটাস চেক করবেন কিভাবে?

অনলাইনে লক্ষীর ভান্ডার স্ট্যাটাস চেক করার জন্য নিচের এই স্টেপ গুলি ফলো করতে পারেন-

#Step 1. অফিশিয়াল ওয়েবসাইট : www.socialsecurity.wb.gov.in এই ওয়েব সাইটটি ওপেন করুন।

#Step 2. এরপরে যে পেজটি ওপেন হবে, সেখানে লক্ষীর ভান্ডার প্রকল্পের জন্য আবেদনের সময় যে মোবাইল নাম্বার দিয়েছিলেন সেটা টাইপ করুন।

Lakshmir Bhandar Scheme Generate OTP for Login
Lakshmir Bhandar Scheme Generate OTP for Login

#Step 3. এরপর জেনারেট ওটিপি (Generate OTP) এই অপশনে ক্লিক করুন।

#Step 4. এরপর আপনার মোবাইল নম্বরটি আবার লিখুন। এবং সেন্ড ওটিপি অপশন এ ক্লিক করুন।

Lakshmir Bhandar Scheme Application Status Login
Lakshmir Bhandar Scheme Application Status Login

#Step 5. এরপর মোবাইলের ওটিপি সেন্ড হবে। তারপর অলরেডি হ্যাভ OTP অপশনে ক্লিক করে ওটিপি নাম্বারটি টাইপ করুন। এরপর লগইন বটনে ক্লিক করুন।

#Step 6. ওয়েবসাইটে লগইন করার পর সামনে আপনার অ্যাপ্লিকেশন (আবেদনের) স্থিতি দেখতে পাবেন। এখানে এপ্রুভ, রিজেক্ট ও কারেকশন এই ধরনের স্থিতি দেখানো হয়।

এই ভাবেই অনলাইনের মাধ্যমে আবেদনপত্রটি কি অবস্থায় আছে তার স্ট্যাটাস চেক করতে পারবেন।

তবে চিন্তার কোন কারণ নেই, আপনি যদি সবেমাত্র লক্ষীর ভান্ডার প্রকল্পের জন্য আবেদনপত্র জমা দিয়ে থাকেন, তাহলে সরকারি কর্তৃপক্ষের আপডেটের জন্য সময় লাগে, তাই আপনাকে কিছুদিন অপেক্ষা করতে হবে। কিছুদিন পর আবার স্ট্যাটাস চেক করে দেখতে পারেন।

লক্ষীর ভান্ডার আবেদনপত্র জমা দেওয়ার পর তার ১৫ থেকে ২০ দিনের মধ্যে আবেদনপত্র জমা পড়েছে সেই সংক্রান্ত মেসেজ (লক্ষীর ভান্ডার রেজিস্ট্রেশন নাম্বার) রেজিস্টার্ড মোবাইল নাম্বারে আসবে। তবে প্রচুর সংখ্যক আবেদনপত্র জমা পড়ার কারণে মেসেজ আসতে একটু দেরি হতেই পারে।

আবেদনপত্রটি যদি ঠিকঠাক ভাবে ফিলাপ করে থাকেন, সেই সঙ্গে প্রয়োজনীয় ডকুমেন্টগুলো জমা দিয়ে থাকেন, তার সাথে মোবাইল নম্বরটি লিখতে যদি ভুল না করে থাকেন, তাহলে অহেতুক চিন্তার কোন কারণ নেই, মেসেজ আপনি পেয়ে যাবেন।

আর যদি টেকনিকাল ফল্টের জন্য মেসেজ না পেয়ে থাকেন তাহলে চিন্তার কোন কারণ নেই। সেক্ষেত্রে মেসেজ না আসার কারণে নতুন করে আবার আবেদনপত্র জমা দেওয়ার কোনো দরকার নেই।

Your Lakshmi Bhandar application is received with application ID ×××××××× Lakshmi Bhandar Govt WB.

আপনারা অবশ্যই যে মোবাইল নাম্বার দিয়েছেন এই মোবাইল নাম্বারে একবার চেক করে দেখুন যে উপরের এই ধরনের মেসেজ এসেছে কিনা।

যদি না এসে থাকে তাহলে আপনারা কিছুদিন অপেক্ষা করতে পারেন। কিছুদিনের মধ্যে আপনাদের ফোনে মেসেজ টা চলে আসবে। যে, আপনাদের অ্যাপ্লিকেশন আইডি টা অ্যাপ্রুভ হয়েছে কিনা।

এসব কাজের ক্ষেত্রে একটু সময় লাগে, তাই অপেক্ষা করুন, আপনার রেজিস্টার্ড মোবাইল নাম্বারে SMS চলে আসবে।

লক্ষীর ভান্ডার প্রকল্পে কত টাকা পাওয়া যাবে

এই প্রকল্পে তপশিলি জাতি ও উপজাতির মা-বোনেরা প্রতিমাসে পাবেন ১০০০ করে টাকা এবং সাধারণ পরিবারের মা ও বোনেরা পাবেন ৫০০ করে টাকা প্রতিমাসে। অর্থাৎ হিসেব অনুযায়ী বছরে ১২০০০ এবং ৬০০০ টাকা পাওয়া যাবে এই প্রকল্প থেকে।

লক্ষীর ভান্ডার প্রকল্পে কারা আবেদন করতে পারবেন

পশ্চিমবঙ্গে বসবাসকারী ২৫ থেকে ৬০ বছর বয়সী SC/ST/OBC এবং জেনারেল কাস্ট এর মহিলারা এই প্রকল্পের জন্য আবেদন করতে পারবেন। তবে তাদের অবশ্যই স্বাস্থ্য সাথী কার্ড থাকতে হবে, তবেই হবে।

Official WebsiteClick Here
HomeClick Here

Leave a Comment