WB Farm Mechanization Scheme 2022: matirkatha.gov.in Online Application

West Bengal Farm Mechanization Scheme 2022 (কৃষি যন্ত্রের ভর্তুকি 2022): জানুন কৃষি যন্ত্রের ভর্তুকি প্রকল্পের অনলাইনে আবেদন পদ্ধতি কি? ও কারা এই প্রকল্পের আবেদন করতে পারবেন? Online Application for Farm Mechanization 2022-23

Farm Mechanization Scheme 2022: সরকারি ভর্তুকিতে কৃষি যন্ত্রপাতি কেনার সুবর্ণ সুযোগ, কিভাবে আবেদন করবেন চলুন জানা যাক

Online Application for Farm Mechanization 2022-23: আমাদের দেশে ৭০% মানুষ কৃষি কাজের সঙ্গে প্রত্যক্ষ এবং পরোক্ষভাবে জড়িত রয়েছেন। শুধুমাত্র কৃষিকাজ করে জীবিকা নির্বাহ করেন এমন মানুষের সংখ্যাও নেহাত কম নয়।

তবে কৃষিক্ষেত্রে আগের তুলনায় এসেছে অনেক পরিবর্তন। কাজের সুবিধার জন্য এবং শারীরিক কষ্ট ও আর্থিক ব্যয় কমানোর জন্য এখন বাজারে বিভিন্ন যন্ত্রাংশ পাওয়া যায় চাষবাসের জন্য। কিন্তু এই যন্ত্রাংশ গুলিও কেনার জন্য অনেক কৃষকের সামর্থ্য থাকে না।

Online Application Under Farm Mechanization Scheme West Bengal
Online Application Under Farm Mechanization Scheme West Bengal

তাই দেশের কৃষি খাতকে উন্নত করতে কৃষকদের সুবিধার্থে কেন্দ্রীয় সরকার এবং রাজ্য সরকার কৃষি যান্ত্রিক প্রকল্প বা কৃষি যন্ত্রপাতির মাধ্যমে কৃষকদের সাহায্য করে থাকে।

এই প্রকল্পের আওতায় কৃষক যে ভর্তুকি এবং অন্যান্য সুবিধা পাবেন, তা সংশ্লিষ্ট সরকারি বিভাগগুলি সরাসরি তাদের ব্যাংক একাউন্টে পাঠিয়ে দেবে।

কৃষি যন্ত্রের ভর্তুকি 2022: Farm Mechanization Scheme 2022

কৃষকদের সহযোগিতার জন্য সরকারি সহযোগিতা কোন দেশের সমস্ত জায়গায় কৃষক বন্ধুরা

বিভিন্ন ধরনের ট্রাক্টর, ফসল কাটার মেশিন, সকল ধরনের রোপন মেশিন, ওয়াশিং মেশিন, এলুমিনিয়ামের মই, ইলেকট্রনিক্স ফার্ম ক্লিনিং মেশিন, লন মোয়ার সহ গ্র্যান্ডিং মেশিন এবং অন্যান্য বিভিন্ন সরঞ্জাম ও যন্ত্রপাতি কেনার ক্ষেত্রে পাবেন ভর্তুকি।

Official Farm Mechanization Scheme PDFDownload
কৃষি যন্ত্রের ভর্তুকি ফর্ম PDFDownload

কারা কারা এই প্রকল্পের আবেদন করতে পারবেন:

যে কোন ব্যাক্তি, ক্ষুদ্র ও প্রান্তিক শ্রেণীর কোন কৃষক সমবায় সংস্থা (PACs), যৌথ দায়বদ্ধ গোষ্ঠীর (JLGs), ফারমার্স প্রডিউসার অরগানাইজেশন (FPO), স্বনির্ভর গোষ্ঠীর (SHC), অধীনে ক্ষুদ্র ও প্রান্তিক শ্রেণীর কোন কৃষক এবং কৃষক স্বার্থ গোষ্ঠীর (FIG’S) সদস্য এই প্রকল্পের সুযোগ নিতে পারবেন।

Official Farm Mechanization Scheme of West Bengal Government
Official Farm Mechanization Scheme of West Bengal Government

এছাড়াও যিনি বিগত চার বছরে কৃষিতে যান্ত্রিক এর প্রকল্পের কোন সুযোগ নেননি, তিনিও এই প্রকল্পের জন্য আবেদন করতে পারবেন। পাওয়ার টিলার এবং সোলার পাম্প সেট কেনার জন্য আবেদনকারীর ন্যূনতম জমির পরিমাণ এক একর বা ১০০ শতক হতে হবে।

কোন কোন প্রকল্পের জন্য আবেদন করতে পারবেন:

#১) কৃষি যন্ত্রপাতি কেনার জন্য আর্থিক অনুদান প্রকল্প (FSSM)

#২) ক্ষুদ্র কৃষি যন্ত্রপাতি কেনার জন্য এককালীন ভর্তুকি প্রকল্প (OTA-SFI)

#৩) কৃষি যন্ত্রপাতি ভাড়া কেন্দ্র স্থাপনের জন্য ভর্তুকি প্রকল্প (CHC)

এই প্রকল্পের আবেদন করার জন্য কি কি ডকুমেন্টস লাগবে আপনার:

#১) ভোটার কার্ড নম্বর

#২) আধার কার্ড নম্বর

#৩) মোবাইল নম্বর

#৪) প্রত্যেক আবেদনকারীর জন্য ভোটার কার্ড নম্বর, আধার নম্বর এবং মোবাইল নম্বর আলাদা হতে হবে। দুইজন আবেদনকারীর ক্ষেত্রে এই তিনটি তথ্যের মধ্যে কোন একটিও মিল থাকলে তার রেজিস্ট্রেশন সম্ভব হবে না।

#৫) যদি কোন ব্যক্তি নিজে আবেদন করেন এবং তার কৃষক বন্ধু আইডি (Krishak Bondhu ID Number) নম্বর থেকে থাকে, তবে সেটাও দিতে হবে।

#৬) আবেদনকারীর জমির পরিমাণ।

#৭) জমির সম্পূর্ণ ঠিকানা (মৌজা, জে এল এবং খতিয়ান নম্বর)

#৮) চালু থাকা ব্যাংক একাউন্ট এর সম্পূর্ণ তথ্য।

#৯) যে যন্ত্রের জন্য আবেদন করবেন কৃষি যান্ত্রিকীকরণ ওয়েবসাইট থেকে, তার ম্যানুফ্যাকচারার যন্ত্রের নাম, ডিলারের নাম, মডেল নম্বর আগে থেকে ঠিক করে নিতে হবে, আবেদনের আগে।

#১০) আবেদনকারীর ভোটার কার্ড ও ব্যাংকের পাস বইয়ের প্রথম পাতা বা চেক এর ছবি JPEG/JPG করে ২০০ কেবি সাইজে আপলোড করতে হবে।

#১১) আবেদন করার পর পিডিএফ (PDF) এর শেষে কি কি ডকুমেন্টস নিয়ে রাখতে হবে, তার সম্পূর্ণ তালিকা দেওয়া থাকবে।

আবেদন করার ওয়েবসাইট ও সময়সীমা:

এই প্রকল্পের জন্য আবেদন করতে হবে, অনলাইনে এর জন্য www.matirkatha.net ওয়েবসাইটে গিয়ে আবেদন করতে হবে। আবেদন করতে পারবেন  ৪ ঠা নভেম্বর, ২০২১ সকাল ১০ টা থেকে ১৮ ই নভেম্বর, ২০২১ বিকেল তিনটা পর্যন্ত।

অনলাইনে নিজে আবেদন করার পাশাপাশি তথ্য মিত্র কেন্দ্র থেকেও আবেদন জমা দিতে পারেন। আবেদন করার পর সহ কৃষি অধিকর্তার অফিসে গিয়ে যোগাযোগ করতে হবে।

এছাড়া এই হেলপ্লাইন নাম্বারে কল করেও সাহায্য চাইতে পারেন:

Technical Support Helpline Number: 8335858732, 8336957043 (সকাল১০ টা থেকে সন্ধ্যা ৬ টা পর্যন্ত)।

এই প্রকল্পের মধ্যে ৬ হাজার থেকে ৫ লাখ টাকা পর্যন্ত ভর্তি কি পাওয়া যায়। এই প্রকল্পের মাধ্যমে বিদ্যুৎ চালিত, পেট্রোল, ডিজেল, চালিত পামপসেট, পাওয়ার টিলার, ট্রাক্টর, রোটাভেটর, মাল্টি ক্রপ, থ্রেশার ইত্যাদি পাওয়া যায়।

OTA-SFI, ছোট যন্ত্রপাতির ক্ষেত্রে ভর্তুকি :

এই প্রকল্পের ছোট যন্ত্রপাতির ক্ষেত্রে ভর্তুকি ৫০% মিলতে পারে। এই প্রকল্পের মাধ্যমে কৃষকরা ধান ঝাড়া মেশিন, কোদাল, ডেলিভারি পাইপ, ধান-চাল রাখার Seed Bin, Nail Weeder, Wheel Hoe ইত্যাদি পেতে পারেন।

CHC, কাস্টম হায়ারিং সেন্টার:

কৃষি যন্ত্রপাতি ভাড়ায় কেন্দ্রের ভর্তুকি ৪০% সর্বাধিক ৮০ লক্ষ টাকা। এই কৃষি যন্ত্রপাতি ভাড়া কেন্দ্র স্থাপন করতে গেলে, কৃষককে ২৫% টাকা দিতে হয় ৪০% সরকারি ভর্তুকি এবং ৩৫ শতাংশ রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাংক থেকে ঋণ নিতে হয়।

এই প্রকল্পে, কম্বাইন হারভেস্টার, ট্রাক্টর, রোটাভেটর, ট্রলি, প্যাডি, ট্রান্সপ্লান্টার, প্যাডি রিপার, মাল্টি ক্রপ, থ্রেশার ইত্যাদির মধ্যে নূন্যতম পাঁচটি যন্ত্রপাতি নিতেই হবে।

এই প্রকল্পের শর্তাবলী:

#১) FSSM ও CHC প্রকল্পের জন্য অনলাইনে এবং OTA-SFI প্রকল্পের জন্য অনলাইন ও অফলাইনে আবেদন করা যাবে।

#২) কৃষি যন্ত্রপাতি ভাড়া কেন্দ্র (CHC) ছাড়া অনলাইনে আবেদনের প্রিন্ট কপি এখন অফিসে জমা নেয়া হবে, তবে OTA-SFI অফলাইনে করা প্রকল্পের আবেদন পত্র অফিসের ড্রপবক্সে জমা দিতে হবে।

#৩) কৃষি যন্ত্র সর্বাধিক ক্রয় মূল্য পশ্চিমবঙ্গ এগ্রো ইন্ডাস্ট্রিজ কর্পোরেশন লিমিটেড এর নির্ধারিত মূল্যের অধিক হবে না।

#৪) পাওয়ার টিলার ও সোলার পাম্প নিতে আগ্রহী কৃষকের ১.৫ একর জমির মালিকানা থাকতে হবে।

#৫) কৃষি যন্ত্রপাতি ভাড়া কেন্দ্র ছাড়া ট্রাক্টর বিতরনের সুযোগ এবছর থাকছে না।

#৬) উপভোক্তার পক্ষে ভর্তুকি প্রদান এর আদেশনামা প্রদান করার ১৫ দিনের মধ্যে এবং ৪৫ দিন সোলার পাম্প এর জন্য নির্ধারিত কৃষিযন্ত্র অনুমোদিত ডিলার এর কাছ থেকে কিনে সংশ্লিষ্ট সহকারে ব্লক কৃষি করণে জমা করতে হবে।

#৭) কৃষি যন্ত্র ক্রয় এবং যাচাইয়ের পর নির্ধারিত ভর্তুকির টাকা উপভোক্তার ব্যাংক একাউন্টে সরাসরি প্রদান করা হবে।

#৮) ভর্তুকির পরিমাণ ছোট যন্ত্র কেনার জন্য মোট দামের ৫০ শতাংশ বা সর্বোচ্চ ১০ হাজার টাকা।

#৯) ভর্তুকির পরিমাণ, শক্তি চালিত যন্ত্রের জন্য (FSSM) মোট দামের কমপক্ষে ৪০ শতাংশ থেকে ৭৫ শতাংশ বা সর্বোচ্চ ৫ লক্ষ টাকা পর্যন্ত হতে পারে।

#১০) কৃষি যন্ত্রপাতি ভাড়া কেন্দ্র স্থাপনের জন্য ২০ লক্ষ টাকা থেকে ২৫০ লক্ষ টাকা পর্যন্ত প্রকল্প ব্যয় এর ৪০ শতাংশ বা সর্বোচ্চ ১০০ লক্ষ টাকা ভর্তুকি প্রদানের সুযোগ আছে।

এই প্রকল্পের জন্য অনলাইনে আবেদন পদ্ধতি:

#১) প্রথমত আপনাকে মাটির কথা (Matir Katha) অফিশিয়াল ওয়েবসাইটে (www.matirkatha.net) লগইন করে আবেদনকারীকে কৃষি যান্ত্রিকীকরণ 2022 (Online Application Under Farm Mechanization Scheme 2022-23) সার্চ করতে হবে।

#২) এখান থেকে কৃষক নিজের EPIC বা ভোটার কার্ড নম্বর দিয়ে লগইন করে আবেদন জানাতে পারেন।

#৩) রেজিস্ট্রেশন না করা থাকলে প্রথমে রেজিস্ট্রেশন করে নিন।

#৪) রেজিস্ট্রেশন এর শুরুতেই আপনার ভোটার কার্ডের নাম্বার ওখানে দিন, ভোটার কার্ডের নাম্বার টি আপনার লগইন আইডি হবে।

#৫) আবেদনের সময় ভোটার কার্ডের নম্বর এবং ব্যাংকের তথ্য আপনাকে আপলোড করতে হবে JPEG/JPG ফরম্যাটে (সাইজ হবে ২০০ কেবির মধ্যে)।

#৬) তারপর ভোটার কার্ডের নাম্বার ও আপলোড হয়ে যাওয়া কার্ডের তথ্য এক হতে হবে, নাহলে আপনার আবেদন গৃহীত হবে না।

#৭) রেজিস্ট্রেশন এর সময় জমির মৌজা ও খতিয়ান নম্বর দিতে হবে।

এই প্রকল্পের বিষয়ে বিশেষ কিছু তথ্য:

#১) খামার যান্ত্রিকীকরণ এর জন্য আর্থিক সহায়তা প্রকল্প হল: FSSM

#২) ক্ষুদ্র ও প্রান্তিক কৃষকদের ক্ষুদ্র খামার সামগ্রী কেনার জন্য এককালীন আর্থিক সহযোগিতা: OTA-SFI

#৩) গ্রামীণ উদ্যোক্তাদের ফার্ম সংক্রান্ত কাস্টম হিয়ারিং সেন্টার, কৃষি যন্ত্রপাতি ভাড়া কেন্দ্র স্থাপনের জন্য ক্রেডিট লিংকড সাবসিটি স্কিম, CHC

#৪) পাওয়ার টিলার, পাম্প প্রভৃতি শক্তিচালিত যন্ত্রের জন্য FSSM স্কিমে ভর্তুকি যন্ত্রপাতি ভেদে ৫০% থেকে ৬০ শতাংশ বা সর্বোচ্চ তিন লক্ষ টাকা।

#৫) কম্বাইন হারভেস্টার, ট্রাক্টর ,সমন্বিত কৃষি যন্ত্র ভাড়া কেন্দ্র CHC স্কিমে ভর্তুকি প্রকল্প ব্যয় এর ৪০ শতাংশ বা ৮ লক্ষ থেকে এক কোটি টাকা।

#৬) ব্যক্তিগত উদ্যোগে সর্বাধিক ভর্তুকি ১৬ লক্ষ ও সংস্থাগত উদ্যোগে সর্বাধিক ভর্তুকি এক কোটি টাকা।

এই প্রকল্প কৃষকদের স্বপ্নকে আরো বেশি বড় আকার দেওয়ার জন্য যথেষ্ট। অনেক কৃষক টাকার অভাবে এমন কৃষি যন্ত্রপাতি কিনে সেগুলোর ব্যবহার করতে পারেন না। সেক্ষেত্রে চাষের উন্নতি ঘটাতেও পারে না।

কেন্দ্র ও রাজ্য সরকারের এই প্রকল্পের মাধ্যমে ভর্তুকির মধ্যে দিয়ে কৃষকেরা তাদের মনের মতো করে চাষাবাদ করতে পারবেন আশা করা যায়। এই প্রকল্পের মধ্যে দিয়ে কৃষক তোদের স্বপ্নটাকে ছুঁয়ে দেখতে পারবেন।

Official WebsiteClick Here
HomeClick Here

Leave a Comment

You cannot copy content of this page