2023 LIC Jeevan Umang Plan in Bengali: কি লাভ এই পলিসি নিলে?

LIC Jeevan Umang Plan in Bengali 2023 (LIC জীবন উমং পলিসি 2023): Benefits of LIC Jeevan Umang Plan in Bengali 2023 | How to Apply LIC Jeevan Umang Policy and Its importance?

প্রিমিয়াম প্রদানের মেয়াদ শেষ হওয়ার পরেই প্রতিবছর পাচ্ছেন ৮ পার্সেন্ট বোনাস! কি বিশ্বাস হচ্ছেনা? অবাক হচ্ছেন? অবাক হওয়ারই কথা কারণ LIC(Life Insurance Corporation of India) নিয়ে এসেছে নতুন এক লাইফ ইন্স্যুরেন্স পলিসি LIC Jeevan Umang Plan.

কি এই পলিসি, কি কি সুবিধা পাওয়া যাবে এই ইন্স্যুরেন্সে এবং কি কি এ থাকতে হবে তা জানতে পুরো লেখাটি পড়ুন।

LIC Jeevan Umang Plan in Bengali
LIC Jeevan Umang Plan in Bengali

নিজের এবং নিজের সন্তানের ভবিষ্যৎ সুরক্ষিত  করতে অনেকেই এখন জীবনবীমার দিকে ঝুঁকছে। পুরো ভারতে অনেকগুলো জীবন বীমা কোম্পানি আছে তবে LIC লাইফ ইন্সুরেন্স কোম্পানি সবচেয়ে বেশি পরিচিত লাইফ ইন্স্যুরেন্স কোম্পানি আর এইবার LIC নিয়ে এল তাদের নতুন পলিসি।

LIC Jeevan Umang Plan

এটি এমন একটি লাইফ ইন্স্যুরেন্স পলিসি যা সবসময় আপনাকে সুবিধা দান করবে। এমনকি ১০০ বছর পর্যন্ত সুবিধা পেতে পারেন । পুরো ভারতে এমন সুবিধা আর কোনো লাইফ ইন্স্যুরেন্স কোম্পানি দিচ্ছে না।

এবার আসুন কি কি সুবিধা দিছে এই নতুন পলিসি তা দেখে নেয়া যাক।

LIC Jeevan Lakshya Policy কি? কি লাভ এই পলিসি নিলে?

LIC আম আদমি বিমা যোজনা – অনলাইন আবেদন করুন

১) Death Benefit :

প্রথমেই বলি Death benefit (মৃত্যুর পর প্রাপ্ত সুবিধা), যদি পলিসির গ্রাহক ইন্স্যুরেন্স পলিসির মেয়াদকালীন সময়ে মারা যায় তবে তার সকল ইন্স্যুরেন্স ক্ষতিপূরন তার নমিনি পাবে। মানে আপনার পরিশোধ করা টাকার একটি পয়সাও নষ্ট হবে না। কোম্পানি আপনার নমিনিকে দিতে বাধ্য থাকিবে।

এবার আসি দ্বিতীয় শর্তে, যদি পলিসি হোল্ডার মেয়াদের পরে মারা যায় তবে নমিনি প্রিমিয়াম পেমেন্ট এর সাথে এক্সট্রা বোনাস পাবে যা বার্ষিক ৮%। মানে মোট বিনিয়োগের এর শতকরা ৮ ভাগ টাকা বোনাস পাবে।

২) Survival benefit :

এখানে যদি পলিসি হোল্ডার প্রিমিয়াম পরিশোধ সমাপ্ত করে তবে সমাপ্ত করার পরের বছর থেকে বার্ষিক ৮ পার্সেন্ট বোনাস পাবে।

৩) Maturity Benefit : 

এখানে পলিসি হোল্ডারের বয়স ১০০ বছর হলে সে তার মোট টাকার সাথে রিভারসিওনারি বোনাস এবং ফাইনাল অ্যাডিশনাল বোনাস পাবে।

এবার আসি আপনি কেনো এই পলিসি নিবেন?

১) এটিই একমাত্র ইন্স্যুরেন্স যা আপনার প্রদানকৃত টাকার ৮% পর্যন্ত বোনাস দিচ্ছে আপনার প্রিমিয়াম পরিশোধের এর মেয়াদ শেষ হওয়ার পর। যা ভারতের আর কোন ইন্স্যুরেন্স কোম্পানি দিচ্ছে না।

২) এই লাইফ ইন্স্যুরেন্সের সুবিধা আপনি গ্রহণ করতে পারবেন ১০০ বছর বয়স হওয়া পর্যন্ত এবং ১০০ বছর পুরনো হলে এটি একটি ফাইনাল বোনাস ও দিবে যা অন্য কোনো ইন্স্যুরেন্স কোম্পানী দিচ্ছে না।

৩) এই পলিসির প্রিমিয়াম কোনো শুল্ক বা ট্যাক্স ছাড়াই আপনি দেওয়ার সুবিধা ভোগ করতে পারবেন।

৪) অ্যাক্সিডেন্ট কিংবা দুর্ঘটনার কারনে কোনো শারীরিক অক্ষমতা ঘটলেও এই ইন্স্যুরেন্সটিতে আপনার জন্য রয়েছে বিশেষ সুবিধা।

৫) এই বিমানটিতে রয়েছে ফ্রি লুক পিরিয়ড, যার মাধ্যমে আপনি প্রতিবছর আপনার ইন্স্যুরেন্সটির কোন কোন সুবিধা নেবেন তা বিবেচনা করার সময় পাবেন।

৬) কোন কারণে ইন্স্যুরেন্সটি চালু রাখতে না পারলে ৩ বছর প্রিমিয়াম দেওয়ার পর সারেন্ডার করার সুযোগ রয়েছে।

এখন দেখে নেয়া যাক এই ইন্স্যুরেন্সের জন্য কি কি যোগ্যতা দরকার জন্য

Eligibility and Criteria:

Sum Assured 1,00,000 No limit
Premium payment term 15, 20, 25,30 years
Policy term 100 years
Age entry limit 99 days 55 years

পলিসি পুনরুদ্ধার

এই নীতি অনুসারে আপনার জীবন বীমাটি বাদ হয়ে গেলে আপনি তা পুনরুদ্ধারের সুযোগ পাবেন। এখানে আপনি আপনার প্রিমিয়াম পেমেন্ট এর মেয়াদ শেষ হওয়ার পূর্বে টানা দুই বছর পুনরুদ্ধারের সুযোগ পাবেন তবে তা প্রিমিয়ামের সুদ পরিশোধ সাপেক্ষে।

পরিশোধিত মূল্যঃ

যদি তিন বছরেরও কম সময়ের প্রিমিয়াম প্রদান করা হয় তবে পলিসির অধীনে সমস্ত সুবিধা বর্ধিত সময়ের মেয়াদ শেষ হওয়ার পরে বন্ধ হয়ে যাবে এবং কিছুই প্রদানযোগ্য হবে না।

যদি কমপক্ষে তিনটি পূর্ণ বৎসরের প্রিমিয়াম প্রদান করা হয় এবং পরবর্তী কোনও প্রিমিয়াম যথাযথভাবে প্রদান না করা হয় তবে পলিসিটি বাতিল হবে না তবে পলিসি মেয়াদ শেষ অবধি পরিশোধিত নীতি হিসাবে চলতে থাকবে।

সারেন্ডার পলিসিঃ

এই পলিসি অনুসারে আপনি কোনো কারণে যদি ইন্স্যুরেন্সটি সচল রাখতে না পারেন তবে তিন বছর প্রিমিয়াম প্রদান করার পর সারেন্ডার করতে পারবেন।

১) এবার আসা যাক বিশেষ কিছু সুবিধার দিকে, দুর্ঘটনায় মারা গেলে অথবা অক্ষম হয়ে গেলে সে প্রিমিয়াম প্রদান করে বিশেষ সুবিধা ভোগ করতে পারবে।

২) প্রিমিয়াম পরিশোধের এর মেয়াদ শেষ হবার এক বছর পূর্বে আত্মহত্যা করলে প্রদানকৃত অর্থের ৮০% পাবে।

৩) ফ্রি লুক পিরিয়ড,অর্থাৎ আপনি এ লাইফ ইন্স্যুরেন্সটি নেওয়ার পর ১৫ দিন পর্যন্ত তা বাতিল করার সুযোগ পাবেন।

এই হলো আজকের LIC Jeevan Umang Plan ইন্স্যুরেন্স নিয়ে লেখা। দীর্ঘমেয়াদি সুবিধা নেওয়ার জন্য আজকাল অনেকেই লাইফ ইন্স্যুরেন্সের পিছনে ছুটছে। তাই যে কোন লাইফ ইন্স্যুরেন্স নেয়ার আগে সকল শর্ত বুঝে নেয়া জরুরী।

Categories LIC

Leave a Comment