2022 ধুপকাঠি তৈরির ব্যবসা কিভাবে শুরু করবেন? | 2022 Incense Sticks Making Business in Bengali

Incense Sticks Making Business: ধূপকাঠি এমন একটি জিনিস, ধার্মিক স্থান থেকে সামাজিক বিভিন্ন কাজকর্মে এর প্রয়োজনীয়তা বিশেষ গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে।

এছাড়াও শ্রীলংকা এবং বিদেশে যারা বসবাস করেন তাদের মধ্যে অনেক ভারতীয় মানুষজন এই ধূপকাঠির ব্যবহার করে থাকেন। এই ধূপকাঠির চাহিদা সারা বছর জুড়ে খুব বেশি পরিমাণে থাকে।

আর তাছাড়া কোনো পূজা-পার্বণ অথবা অনুষ্ঠানে এর চাহিদা তো আরো বেশি বেড়ে যায়, ধূপকাঠি বানানোর ব্যবসা (Agarbatti Making Business) ছোট থেকে বড় যেকোনো আকারে আপনি শুরু করতে পারেন।

Incense Sticks Making Business in Bengali - Agarbatti Making Business
Incense Sticks Making Business in Bengali – Agarbatti Making Business

ঘরকে সুগন্ধিত করার জন্য ধূপকাঠির ব্যবহার করে থাকেন অনেকেই। এর ব্যবহারে জীবাণুনাশক হিসেবে কাজ করে ধূপকাঠি।

সুচিপত্র

ধুপকাঠি তৈরির ব্যবসা শুরু করবেন কিভাবে:

এই ব্যবসা হল ঝুঁকি বহির্ভূত, একটি ব্যবসা এবং খুব কম টাকা ইনভেস্ট করে এই ব্যবসা অনায়াসেই শুরু করতে পারবেন আপনি। তাছাড়া যে কোন ব্যবসা শুরু করতে গেলে প্রথমে কিছু পরিকল্পনা নেওয়া জরুরি, সেগুলি হল:

#১) সবার প্রথমে আপনি কত টাকা পর্যন্ত ইনভেস্ট করে এই ব্যবসা শুরু করতে চান সেটা প্রথমে নির্ধারণ করে নিন, তারপর সেই পরিকল্পনা অনুসারে আপনার একটি বাজেট তৈরি করুন।

#২) ধূপকাঠির বাজার (Incense Sticks Market) সম্পর্কিত বিভিন্ন তথ্য জানতে হবে আপনাকে, এই ব্যবসা শুরু করার ক্ষেত্রে তার ফলে এই ব্যবসায় যদি কোনো বাধা-বিপত্তি আসে সে ক্ষেত্রে আপনি আগে থেকেই তা সামাল দিতে পারার পরিস্থিতি তৈরি করে নিতে পারবেন।

#৩) আপনি যে জায়গায় ব্যবসাটি শুরু করবেন সে জায়গাটি নির্ধারণ করে নিন, তারপর ব্যবসাটি শুরু করে সেটি ভালোভাবে চালানো এবং আপনার পরিকল্পনা সম্পূর্ণ করার চেষ্টা করুন।

#৪) এই ব্যবসার জন্য কাঁচামালের কেনাকাটা এবং তৈরি হওয়া ধূপকাঠির প্যাকেজিং (Incense Sticks Packaging) এবং বিভিন্ন রকমের জিনিসপত্র কেনা এবং তৈরি করা সম্পর্কে পরিকল্পনা আগে থেকেই নিয়ে রাখুন।

ধুপকাঠি তৈরি করার ক্ষেত্রে র মেটেরিয়াল অথবা কাঁচামাল কোথায় থেকে নেবেন:

এক্ষেত্রে একটি বিষয় বিশেষভাবে গুরুত্বপূর্ণ যে ধূপকাঠি তৈরির বিভিন্ন রকমের সামগ্রী এবং কাঁচামাল আপনি যেকোন জায়গায় পেয়ে যেতে পারেন।

#১) কলকাতাতে অনেক ধূপকাঠি তৈরীর বড় কোম্পানি আছে, সেখান থেকেও আপনি কাঁচামাল নিয়ে এসে নিজের ব্যবসা শুরু করতে পারেন, যেমন কৃষ্ণা গ্রুপ, দুর্গা ইঞ্জিনিয়ারিং, লোকনাথ ধুপকাঠি, ইত্যাদি নামে বিভিন্ন রকমের কোম্পানি থেকে আপনি আপনার ব্যবসার জিনিসপত্র, কাঁচামাল নিয়ে আসতে পারেন।

#২) আমেদাবাদে এমকে পাঞ্চাল ইন্ডাস্ট্রিজ অমুল আগারবাত্তি (ধূপকাঠি) ওয়ার্কস এন্ড শান্তি এন্টারপ্রাইজ, কোম্পানি আছে যা কিনা প্রত্যেক শহরে ধুপকাঠি তৈরির জন্য বিভিন্ন রকমের কাঁচামাল ও সামগ্রি যোগান দিয়ে থাকে।

#৩) আপনি আপনার শহর এবং গ্রাম অনুসারে এইরকম কোম্পানির বিভিন্ন ওয়েবসাইট থেকে এসব জিনিসপত্রও নিতে পারেন, তাছাড়া কিছু লিংক এর সাহায্যে ধূপকাঠি তৈরিতে বিভিন্ন রকমের কাঁচামাল (Incense Sticks Making Raw Material) এবং সামগ্রী পাওয়া যায়, এমন জায়গার সন্ধান আপনি পেয়ে যাবেন।

Agarbatti Raw Material at Best Price in India

Agarbatti Raw Powder Click here
Agarbatti Bamboo Sticks Click Here
Agarbatti Making Machine Click Here

ধুপকাঠির ব্যবসা শুরু করতে জায়গার প্রয়োজনীয়তা:

এই ব্যবসাতে আপনি ছোট জায়গা থেকে এবং ছোট করে এই ব্যবসা শুরু করতে পারেন, কিন্তু আপনি যদি এই ব্যবসাটাকে বড় জায়গায় নিয়ে যেতে চান সে ক্ষেত্রে এই ব্যবসা শুরু করার জন্য প্রায় ১০০০ স্কয়ার ফিট পর্যন্ত জায়গার প্রয়োজনীয়তা হতে পারে।

ধূপকাঠি বানাতে কত সময় লাগতে পারে:

ধুপকাঠি তৈরি করে সেটা প্যাকিং করা পর্যন্ত কতটা সময় লাগতে পারে সেটা আপনার এবং আপনার কর্মচারী এবং আপনি কি ধরনের মেশিন ব্যবহার করছেন তার উপর নির্ভর করবে।

আপনি যদি অটোমেটিক মেশিন ব্যবহার করেন সেক্ষেত্রে এক মিনিটে ১৫০ থেকে ২০০ টি ধূপকাঠি আপনি বানাতে পারবেন, আর যদি আপনি হাতে এই ধুপকাঠি তৈরি করেন, সেক্ষেত্রে সময় অনেকটা লাগতে পারে এবং আর নির্ভর করবে আপনার কর্মচারীর উপর, আপনার কর্মচারী কতটা পরিমাণ ধূপকাঠি বানাতে পারছে সেটা সবচেয়ে বেশি গুরুত্বপূর্ণ বিষয়।

এই ব্যবসা করতে গেলে মোট কত খরচ হতে পারে:

এই ব্যবসা শুরু করতে গেলে প্রথমে আপনি কম করে ১৩,০০০ টাকা ইনভেস্ট করে একেবারে ঘরোয়া পদ্ধতিতে অথবা ঘরে থেকেই ধুপকাঠি তৈরির ব্যবসাটা শুরু করতে পারেন।

আর যদি মনে করেন যে আপনি মেশিন বসিয়ে এই ব্যবসা শুরু করবেন, সে ক্ষেত্রে আপনার প্রথমত কম করে ৫ লাখ টাকা ইনভেস্ট করতে হবে, যেমন ধরুন ম্যানুয়াল মেশিনের দাম ১৪ হাজার টাকা পর্যন্ত পড়তে পারে।

সেমি অটোমেটিক মেশিনের দাম ৯০ হাজার টাকা এবং হাই কোয়ালিটি স্পিড মেশিনের দাম প্রায় ১ লাখ থেকে ১ লাখ ১৫ হাজার টাকা পর্যন্ত পড়তে পারে।

ধূপকাঠি বানানোর জন্য কাঁচামাল অথবা র ম্যাটেরিয়ালস:

ধূপকাঠি বানানোর জন্য যে যে কাঁচামালের প্রয়োজন এবং সামগ্রির প্রয়োজন, সেগুলোর বাজারদর হিসেবে ভিন্ন ভিন্ন হতে পারে। আপনি কিরকম ধরনের কাঁচামাল এবং সামগ্রী চাইছেন তার উপরে তার দাম নির্ভর করবে।

হাতে ধূপকাঠি বানানোর পদ্ধতি:

প্রধানত দু’ রকম ভাবে ধুপকাঠি তৈরির ব্যবসা করা যায়, একটা হল মসলা ধূপকাঠি এবং আর একটা হল সুগন্ধিত ধূপকাঠি।

এই ধূপকাঠি বানানোর জন্য ধূপকাঠি বানানোর চারকোল পাউডার (Incense Sticks Making Power), কাঠের কুচি একসাথে মিশিয়ে তাতে পরিমাণমতো জল মিশিয়ে ভালো করে একটি মিশ্রণ তৈরি করতে হয়, তারপর সেই মিশ্রণটি বাঁশের পাতলা ছোট ছোট কাঠির মধ্যে ভালোভাবে পাকিয়ে ধূপকাঠির আকার দিতে হয়।

তারপর সুগন্ধি তেলে সেই ধূপকাঠি গুলো ডুবিয়ে আবার পুনরায় সে গুলোকে শুকাতে হয়, তারপর সেই ধূপকাঠি  গুলো প্যাকেট করে রাখতে হয়।

সুগন্ধি ধূপকাঠি তৈরির পদ্ধতি:

আপনি যদি গন্ধযুক্ত অর্থাৎ সুগন্ধি ধূপ কাঠি বানাতে চান সেক্ষেত্রে ধূপকাঠি বানানোর পর ধূপকাঠি শুকনো হওয়ার পরে একটা বিশেষ রকমের পারফিউম এর মধ্যে ডুবিয়ে রাখতে হয়। তারপর শুকিয়ে যাওয়ার পর সেগুলো কে আবার প্যাকেট করতে হয়।

আর এই পারফিউম অথবা সুগন্ধিত তেল ৪:১ এই অনুপাতে মেশাতে হয় অর্থাৎ ডি ইপি চার লিটার এবং তার মধ্যে ১ লিটার পারফিউম মেশাতে হয়। এই মিশ্রণের মধ্যে তৈরি হওয়া ধূপকাঠি গুলি ডুবিয়ে রেখে তারপর শুকিয়ে প্যাকেট করতে হয়।

ধূপকাঠি বানানোর ক্ষেত্রে সাবধানতা অবলম্বন:

ধূপকাঠি তৈরি হয়ে যাওয়ার পর কখনোই সরাসরি রোদে শুকানো যায় না। সবসময়ের জন্য ছায়া জায়গায় হাওয়া বাতাসের মাধ্যমে অথবা শুকানোর মেশিনের দ্বারা ধুপকাঠি গুলো শুকানো হয়।

ধুপকাঠি গুলো ভালোভাবে শুকানোর জন্য আলাদা আলাদা করে ভালোভাবে ছড়িয়ে শুকাতে হয় যাতে একটা ধূপকাঠির সাথে আরেকটা ধূপকাঠি যেন জড়িয়ে না যায়।

ধুপকাঠি তৈরির ব্যবসার জন্য রেজিস্ট্রেশন:

এই ব্যবসা যদি আপনি বড় আকারে শুরু করতে চান, সে ক্ষেত্রে কিছু দস্তাবেজ এবং কাজকর্ম আপনাকে সেরে রাখতে হবে, সেগুলি হল:-

#১) সর্বপ্রথম আপনি যে ব্যবসা শুরু করছেন, সেই কোম্পানির আকার অনুসারে আর ওসি তে ব্যবসার রেজিস্ট্রেশন করিয়ে নিন। এর ফলে যদি আপনি কোন লোন নিতে চান সে ক্ষেত্রে আপনার উপর ভরসা করতে পারবে ঋণদাতা। তার সাথে সাথে কাগজপত্রের সহযোগিতা পাবেন অনায়াসেই।

#২) এই ব্যবসার ক্ষেত্রে লাইসেন্স এর জন্য স্থানীয় আধিকারিকের কাছে আবেদন করতে পারেন।

#৩) সেখান থেকে আপনি আপনার ব্যবসার জন্য প্যান কার্ডও করতে পারবেন।

#৪) বর্তমান সময়ের এই ব্যবসার জন্য একটি ব্যাংক অ্যাকাউন্ট খুলুন।

#৫) আপনার ব্যবসাকে এস এস আই ইউনিট এ রেজিস্ট্রেশন করিয়ে নিন।

#৬) আপনার ব্যবসার ব্রান্ড সুরক্ষিত রাখার জন্য রেজিস্ট্রেশন করিয়ে নিন।

#৭) যদি আপনি খুব বড়ো আকারে এই ব্যবসা শুরু করতে চান, আপনার কোম্পানির দূষণ সম্পর্কিত বোর্ড থেকে এন ও সি এর জন্য আবেদন করুন। তার সাথে সাথে আপনার ফ্যাক্টরি অথবা কোম্পানির লাইসেন্সও করিয়ে নিন।

ধুপকাঠি তৈরির ব্যবসার জন্য কি রকম মেশিন নির্বাচন করবেন:

এই ব্যবসা শুরু করতে গেলে আপনি বড় অথবা ছোট যেভাবেই শুরু করুন না কেন, সেই অনুসারে আপনাকে মেশিন নির্বাচন এবং কিনতে হবে।

সাধারণত ধুপকাঠি তৈরির মেশিন তিন প্রকারের হয়:-

১) ম্যানুয়াল মেশিন (Manual machine)

২) অটোমেটিক মেশিন (Automatic machine)

৩) হাই স্পিড অটোমেটিক মেশিন (High speed automatic machine)

তার সাথে সাথে আপনার তৈরি হওয়া ধূপকাঠি গুলি শুকানোর জন্য একটি মেশিন এর প্রয়োজনীয়তা হবে।

আবার র ম্যাটেরিয়ালস অথবা ধূপকাঠি তৈরির কাঁচামাল মেশানোর জন্য আলাদা করে আপনি মেশিন নিতে পারেন, অথবা হাতেও সেই মসলা তৈরি করতে পারেন।

যদি বড় আকারে ব্যবসা শুরু করতে চান সে ক্ষেত্রে প্রতিটা মেশিনের আলাদা আলাদা ভূমিকা রয়েছে। সেক্ষেত্রে আপনার প্রোডাকশন অথবা ধুপকাঠি তৈরির পরিমাণটা অনেকটাই বৃদ্ধি পাবে।

১) ম্যানুয়াল মেশিন: Agarbatti Manual machine

ম্যানুয়াল মেশিন চালানো খুবই সহজ এবং এই মেশিন ডবল এবং সিঙ্গেল প্যাডেল দুই রকমের হয়ে থাকে। এর দাম অপেক্ষাকৃত অনেকটাই কম এবং টেকসই ও বটে।

সাধারণ কোনো ধূপকাঠি বানানোর জন্য ম্যানুয়াল মেশিন আপনার জন্য ঠিক থাকবে। তার সাথে সাথে এই মেশিন খুব ভালোভাবেই ধুপকাঠি তৈরি করে, কোন অসুবিধা নেই।

২) অটোমেটিক মেশিন: Agarbatti Automatic machine

এই ব্যবসা বড় আকারের শুরু করতে গেলে, অটোমেটিক মেশিন টা আপনার ক্ষেত্রে ঠিক থাকবে। বেশি পরিমাণে ধূপকাঠি তৈরির জন্য অটোমেটিক মেশিন এর প্রয়োজন আছে, এই মেশিন ১ মিনিটে ১৫০ থেকে ১৮০ ধূপকাঠি বানাতে পারে।

তবে এই মেশিনের বিশেষত্ব হলো বেশি পরিমাণে ধুপকাঠি তৈরি করা থেকে কোন প্রকারের ধূপকাঠির তৈরীর বাঁশের কাঠি ব্যবহার করা যেতে পারে।

৩) হাই স্পিড মেশিন: Agarbatti High speed automatic machine

এই ব্যবসার ক্ষেত্রে হাইস্পিড মেশিন যদি আপনি ব্যবহার করেন সেক্ষেত্রে আপনার কর্মচারীর প্রয়োজন পড়বে না। এই হাইস্পিড মেশিন একাই একশো।

বৈদ্যুতিক ভাবে এই মেশিন অটোমেটিক ভাবেই চলে, এবং এক মিনিটের ৩০০ থেকে ৪৫০ টা ধূপকাঠি বানাতে পারে। এই মেশিনের ক্ষেত্রে ধূপকাঠির দৈর্ঘ্য ৮ থেকে ১২ ইঞ্চি পর্যন্ত রাখতে পারেন।

ধূপকাঠি শুকানোর মেশিন:

বাজারে অথবা মার্কেটে বিভিন্ন রকমের মডেলের সাথে আপনি ধূপকাঠির শুকানোর মেশিন (Incense Drying Machine) পেয়ে যাবেন। এই মেশিন যদি আপনি আপনার কোম্পানিতে লাগাতে পারেন। সে ক্ষেত্রে আধঘণ্টায় ১৬০ কিলো ধূপকাঠি শুকিয়ে ফেলতে পারবেন।

যার ফলে আপনি অনেকগুলো ধূপকাঠি বানিয়ে সেগুলি প্যাকেট করেও ফেলতে পারবেন। এই মেশিন প্রায় ২৫,০০০ টাকা দাম পড়তে পারে, কিন্তু আপনি যদি ঘরোয়া উপায়ে ধূপকাঠি শুকাতে চান সে ক্ষেত্রে ছায়া জায়গায় পাখার হাওয়াতেও শুকাতে পারেন।

ধুপকাঠি তৈরির পাউডার মেশানোর মেশিন:

এই মেশিনের সাহায্যে শুকনো এবং ভিজে দুই রকমের পাউডার এর মিশ্রণ তৈরি করা যায়, এই মেশিন আবার বিভিন্ন রকম এবং বিভিন্ন আকারের হয়। এই মেশিন কিনতে আপনার খরচ পড়বে ৩২ হাজার টাকা পর্যন্ত।

ধূপকাঠি প্যাকেটজাত করা:

কোন জিনিস কেনার আগে ক্রেতা সবসময়ের জন্য সেই জিনিস এর প্যাকেটের উপরে বেশি খেয়াল করেন। কোন জিনিসের প্যাকেজিং যত ভালো হবে ততোই ক্রেতাদের দৃষ্টি আকর্ষণ করবে, এটা একটা সাধারন বিষয়।

সেক্ষেত্রে আপনার ব্যবসা টাকে আরো বেশি উন্নতির শিখরে নিয়ে যাওয়ার জন্য প্যাকেটের উপরে বিশেষ খেয়াল রাখাটা প্রয়োজন। যে জিনিসের প্যাকেজিং যত বেশি ভালো, সেই জিনিসের চাহিদাও ততবেশি।

প্যাকেট করার পর ধূপকাঠি আপনি যেকোন মার্কেট, দোকান, পাইকারি ইত্যাদি জায়গায় বিক্রি অথবা স্টোর করতে পারেন। আবার আজকাল তো অনলাইনেও সবকিছুই বিক্রি হয়।

তাই সে ক্ষেত্রে ধূপকাঠিও বিক্রি করতে পারবেন আপনি অনলাইনে। ধূপকাঠির প্যাকেজিং (Agarbatti Packaging) করার জন্য সাধারণত হাতে করা হয়, প্রতি প্যাকেটে ধূপকাঠি গুনে গুনে ভরে প্যাকেট করতে হয়।

সেক্ষেত্রে রঙিন কোন প্লাস্টিকের প্যাকেট অথবা কাগজের সুন্দর ছাপা বক্স এর মধ্যেও ধূপকাঠি প্যাকেট করা হয়। সেই প্যাকেটের গায়ে কোম্পানির লোগো, নাম দিয়ে মার্কেটে ছাড়া হয়, সে ক্ষেত্রে সেই ব্যবসায়ীর বিজ্ঞাপন টাও হয়ে যায়, এই প্যাকেট এর মাধ্যমে।

আবার মেশিনের মাধ্যমে ও ধূপকাঠি প্যাকিং করা হয়, সে ক্ষেত্রে মেশিনের মাধ্যমে ধূপকাঠি গুনে গুনে প্যাকেটে ভরা হয়, মেশিনের দ্বারা অটোমেটিক এই প্রক্রিয়া চলতে থাকে তাছাড়া আরেকটা ম্যানুয়াল মেশিনও পাওয়া যায়, যেখানে শুধুমাত্র ধুপকাঠি গোনা যায়, বাকি হাতের মাধ্যমে প্যাকেট করতে হয় ধূপকাঠি গুলি।

যে কোম্পানি থেকে আপনি কাঁচামাল মেশিন এবং অন্যান্য সামগ্রী কিনবেন সেখান থেকেও কিন্তু আপনাকে ধূপকাঠি তৈরির প্রশিক্ষণ দিয়ে দেবে, প্রশিক্ষণের মাধ্যমে আপনি খুব ভালভাবেই এই ব্যবসাটি করতে পারবেন অনায়াসেই। আর এর চাহিদা সারা বছর কখনোই কমে না। সে ক্ষেত্রে সারাবছর আপনার ব্যবসা চলবে পুরোদমে।

1 thought on “2022 ধুপকাঠি তৈরির ব্যবসা কিভাবে শুরু করবেন? | 2022 Incense Sticks Making Business in Bengali”

  1. ধূপ সম্পকৃত সমস্ত কোম্পানির নাম দিয়েছেন কিন্তু কন্ট্রাক্ট নম্বর দিয়ে সহযোগিতা করলে খুবই উপকৃত হোতাম।
    ধন্যবাদ

    Reply

Leave a Comment