শিশু দিবস 2023 তারিখ ও সময় | Childrens Day 2023 Date & Muhurat

শিশু দিবস 2023 তিথি ও সময় ভারতীয় সময় অনুসারে। কবে পড়েছে এবছরের শিশু দিবস 2023? শিশু দিবসর শুভ সময় কখন? জানুন 2023 শিশু দিবসর মুহূর্ত ও কেনাকাটার শুভ মুহূর্ত এবং তাৎপর্য। এই বছরের কবে শিশু দিবস? জেনে নিন কেনাকাটার পাশাপাশি উৎসবের শুভ সময় ও মুহূর্ত। এছাড়াও শিশু দিবসর তাৎপর্য, পূজা বিধি এবং এই সময় কি কাজ করা উচিৎ ও কি না করা উচিৎ জানুন সবকিছু।

শিশু দিবস তারিখ ও সময় | Childrens Day Date & Muhurat
শিশু দিবস 2023 তারিখ ও সময় | Childrens Day 2023 Date & Muhurat

শিশু দিবস 2023 (Childrens Day 2023): প্রতিটি শিশুই কিন্তু ভবিষ্যৎ এই দেশের জন্য। তার পাশাপাশি নবজাগরণে শিশুরাই আগামী দিনের আলো বলা যেতে পারে, আর পরবর্তী প্রজন্ম হিসেবে দেশকে সুন্দরভাবে পরিচালনা করার জন্য বর্তমান শিশুদের গুরুত্ব দেওয়াটা বিশেষভাবে প্রয়োজন। শিশুদের সমস্ত দিক থেকে উজ্জীবিত করতে এবং তাদের অধিকার, সুরক্ষা ও শিক্ষার প্রতি জোর দেওয়ার জন্য এই দিনটি বিশেষভাবে পালন করা হয়।

এই বছর শিশু দিবস 2023 কবে?

Childrens Day
14 November 2023
Tuesday

This is the 60th Children’s Day

শিশু দিবসের বাংলায় তারিখ

শিশু দিবস
১৪ নভেম্বর ২০২৩
মঙ্গলবার

এটি ৬০তম শিশু দিবস

 

পন্ডিত জওহরলাল নেহেরু ১৮৮৯ সালের ১৪ ই নভেম্বর জন্মগ্রহণ করেন। শিশু দের প্রতি তার গভীর স্নেহ এবং ভালোবাসার কথা আমরা সকলেই কিন্তু জানি। তার শিশুদের প্রতি ছিল খুবই স্নেহ ও ভালবাসা, তিনি শিশুদের ভীষণই ভালোবাসতেন, যে কারণে তিনি তাদের কাছে চাচা নেহেরু নামেও পরিচিত ছিলেন।

2023 শিশু দিবস শুভেচ্ছা বার্তা ও স্ট্যাটাস ছবি

শিশু দিবসের তাৎপর্য 2023:

শিশুদের প্রতি স্নেহ, ভালবাসার পাশাপাশি তাদেরকে সঠিকভাবে বড় করার ব্যাপারেও তিনি অনেক বেশি জোর দিতেন। তিনি এও বলেছিলেন যে, “আজ আমরা যেভাবে শিশুদের বড় করব কাল তারা সেভাবেই দেশ চালাবে”।

তাই শিশুদের মধ্যে পারস্পরিক সৌহার্দ্য বিনিময়, সম্প্রীতি বোধ, বোঝাপড়া এবং বাচ্চাদের কল্যাণে বিভিন্ন পদক্ষেপ গ্রহণ করা, তাদের সঠিক পথ দেখানো, সঠিক সিদ্ধান্ত নিতে শেখানো উচিত প্রতিটি বাবা-মায়ের। তাছাড়া বাবা মায়েদের সাথে সাথে আশেপাশের পরিবেশ এবং পরিবারের আরো অন্যান্য সদস্যরা, তাদেরকে সঠিক পথ দেখাতে সাহায্য করাটা উচিত বলে মনে করেন তিনি।

তবে আজও দেশের কোথাও কোথাও অবহেলিত থেকে যাচ্ছে শিশুরা। সেখানে দেখা যায় শিশু শ্রমিক হিসাবে তাদেরকে ব্যবহার করা হচ্ছে, হাতে বইয়ের পরিবর্তে তুলে দেওয়া হচ্ছে নানান ধরনের কাজের সমস্ত রকম সামগ্রী।

তাই এই শিশু দিবসে প্রত্যেক শিশুকে স্কুলমুখী করে তুলতে হবে, শিক্ষার আলোয় উজ্জ্বল করতে হবে তাদের ভবিষ্যৎ, দেখাতে হবে সঠিক পথ, তবেই কিন্তু সফল হবে শিশু দিবস পালন করা, সফল হবে পন্ডিত জওহরলাল নেহেরুর দেখা সেই সমস্ত স্বপ্ন গুলি।

শিশু দিবস অথবা চিলডেন্স ডে উপলক্ষে এই দিন স্কুল কলেজ এবং আরো অন্যান্য বিভিন্ন সংস্থায় বিভিন্ন ধরনের অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। শিশু দের জন্য থাকে অনেক রকমের প্রতিযোগিতা এবং ইভেন্ট। শিক্ষকরা একত্রিত হয়ে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান করে থাকেন এবং এই দিন উপলক্ষে মিষ্টি, বই, চকলেট এবং আরো অন্যান্য উপহার বিতরণ করা হয় ছোট্ট ছোট্ট শিশুদের মধ্যে। কোথাও কোথাও শিশুদের চলচ্চিত্র উৎসবেরও আয়োজন করা হয়।

বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের পাশাপাশি অভিভাবকরাও নিজের বাড়িতে পালন করে থাকেন এই শিশু দিবস। শুধুমাত্র বিদ্যালয় তেই শিশু দিবস পালন করা হয় না, যেসব শিশুরা রাস্তায় থাকে এবং অনাথ, তাদের মুখেও হাসি ফোটানোর জন্য অনেক রকম প্রচেষ্টা চালানো হয়।

Leave a Comment